কংগ্রেসকে কড়া আক্রমনের মাধ্যমে জানিয়ে দিলেন মোদীর পাশে নেতাজির পরিবার।

সুভাষ চন্দ্র বোসকে স্বাধীন ভারতের প্রথম প্রধানমন্ত্রী হিসেবে আখ্যা দিয়েছেন বর্তমান ভারতের মুখ্যমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। একই সঙ্গে কংগ্রেসের উপর প্রহার মোদির, সুভাষ চন্দ্র বোসকে গুরুত্বহীন করে দেওয়ায় কড়া আক্রমণ কংগ্রেস সরকারের দিকে মোদির।
গত রবিবার লালকেল্লার প্রথা ভেঙে মোদি সরকার লালকেল্লায় উত্তোলন করেছেন দেশের পতাকা। রবিবার নেতাজি সংঘটিত আজাদ হিন্দ সরকার এর 75 বছর পূর্তি উপলক্ষে লালকেল্লায় জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। এই সময় নরেন্দ্র মোদির পাশে থেকে সুভাষ চন্দ্র বোস এর বংশধর এবং পশ্চিমবঙ্গের ভারতীয় জনতা পার্টির কমিটির সদস্য চন্দ্র বোস ভাষণে তুলে ধরলেন নেতাজির একগুচ্ছ স্বাধীনতা সংগ্রামের কথা। চন্দ্র বোস রাজ্যের সহ-সভাপতিদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য একজন।

মোদির পাশে দাঁড়িয়ে চন্দ্র বোস কংগ্রেসকে কড়া আক্রমণ করেছেন গত রবিবার বিজেপি সরকারের, 75 বছর পূর্তি অনুষ্ঠানে। চন্দ্র বোসের অভিযোগ, কংগ্রেস দেশের ইতিহাস বিকৃত করেছে এবং নিজের পরিবার সম্পর্কে একনায়কতন্ত্র স্থাপন করতে চেয়েছে।তিনি আরো বলেন যে 1857 খ্রিস্টাব্দে সিপাহী বিদ্রোহের সময় অনেক বিদ্রোহী প্রাণ হারিয়েছেন কিন্তু কংগ্রেস তাদের উচিত সম্মান দেননি।

চন্দ্র বোস এর মতে 1944 খ্রিস্টাব্দে নেতাজি এবং তার আজাধীন ফৌজ লালকেল্লা এসে তেরেঙ্গা উত্তোলন করতে চেয়েছিলেন কিন্তু জহরলাল নেহেরু ব্রিটিশদের সাথে যুক্ত হয়ে আজাধীন ফৌজ এবং নেতাজি কে আটকে দেয় ,এবং বিশ্বাসঘাতকতা করে দেশের সঙ্গে এবং নেতাজি সঙ্গে।
চন্দ্র বোস দাবি করেন যে অবিভক্ত ভারতের প্রথম প্রধানমন্ত্রী ছিলেন সুভাষ চন্দ্র বসু ,দেশ ভাগের পর প্রধানমন্ত্রী পদে নিযুক্ত হন জহরলাল নেহেরু কিন্তু একথা বর্তমান যুব সমাজের অজানা তাই একথা এই ইতিহাস এই গৌরব জানানো উচিত সাধারণ মানুষ এবং যুবসমাজকে।

Related Post

Related Articles

Open

Close