যৌন হেনস্থায় অভিযুক্ত এম জে আকবরের ইস্তফা চাইলেন স্বয়ং মোদী নিজে।

আজ সকালেই দেশে ফিরেছেন যৌন হেনস্থায় অভিযুক্ত কেন্দ্রীয় মন্ত্রী এম জে আকবর। এম জে আকবর এর ইস্তফা দেওয়া নিয়ে ইতিমধ্যেই হইচই পড়ে গেছে রাজনৈতিক মহলে। দলীয় সূত্রে খবর প্রধানমন্ত্রীর নরেন্দ্র মোদির কাছে নাকি তিনি নিজেই ইস্তফা পত্র পাঠিয়ে দিয়েছেন।তবে সরকারের তরফ থেকে এখনো পর্যন্ত তা নিয়ে কোনো সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি।শুধু জানা গিয়েছে কিছুদিনের মধ্যে এই প্রসঙ্গে জরুরি বৈঠকে বসছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। রাজনৈতিক মহলের ধারণা যে এই বৈঠকেই গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।ইতিমধ্যে#MeToo অভিযান সারাদেশে ঝড় তুলে দিয়েছে। এই ঝড়ে একে একে রাজনৈতিক মহল, সংবাদমাধ্যম ,এমনকি সিনেমা জগৎ পর্যন্ত সবাই ধ্বংস হয়ে যাচ্ছে।

রবিবারও এম জে আকবর এর বিরুদ্ধে মুখ খুললেন আরো এক মহিলা সাংবাদিক তার অভিযোগ মন্ত্রী এম জে আকবর তাকে বলপূর্বক চুম্বন করার চেষ্টা করেন। গত সপ্তাহ থেকেই এম জে আকবর এর বিরুদ্ধে কয়েকজন মহিলা সাংবাদিক যৌন হেনস্থার অভিযোগ আনে। এই সমস্ত অভিযোগ শোনার পরে তার বিরুদ্ধে বিরোধী দলগুলি সরব হয়ে পড়েন। তাদের দাবি এম জে আকবরকে পদত্যাগ করতে হবে এখনই।

বিজেপির তরফ থেকেও এম জে আকবর কে নিয়ে মতান্তর সৃষ্টি হয়েছে। এ নিয়ে বিজেপি প্রকাশ্যে মুখ না খুললেও তারা এই অভিযোগটি কে অনেক বড় অভিযোগ বলে মনে করছেন। তবে দলের তরফ থেকে জানানো হয়েছে এ নিয়ে সিদ্ধান্ত নেবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী স্বয়ং। ফলে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বৈঠক উপরেই নির্ভর করছে আকবরের ভবিষ্যৎ।

Related Post

Related Articles

Open

Close